উচ্চশিক্ষায় চিন্তা নেই ! ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ব্যাঙ্ক ঋণ পাবেন- গ্যারান্টার থাকবে সরকার।


 


পশ্চিমবঙ্গ সরকার ছাত্র ছাত্রী দের উচ্চ শিক্ষার জন্য স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড [ wb student credit card scheme] স্কিম নিয়ে এলো এই স্কিমের ফলে এবার যারা টানা ১০ বছর এই রাজ্যে রয়েছেন তাঁরাই এই সুবিধে পাবেন দশম শ্রেণী থেকে পড়ুয়ারা উচ্চশিক্ষার জন্য ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ব্যাঙ্ক ঋণ পাবেন WBSCCS এর মাধ্যমে

 

২৪ জুন এই প্রকল্পের অনুমোদন হয়েছে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এবার থেকে ঋণ নিতে বাবা-মায়েদের আর চিন্তা করতে হবে না ঘর-বাড়ি বিক্রি করতে হবে না সরকার এই ঋণের গ্যারান্টার হবে ছাত্রছাত্রীরা আমাদের গর্ব তাঁরা দেশে-বিদেশে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে পড়ার খরচ চালানোর জন্য এই ঋণ নিতে পারবে সরকারই এই টাকা অনলাইনে দিয়ে দেবে

 আগামী ৩০ জুন প্রকল্পের আনুষ্ঠানিক সূচনা হবে

করা এই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড স্কিমের WBSCCS আবেদন যোগ্য হবেন

  • ·       দশম শ্রেণী থেকে পড়ুয়ারা উচ্চশিক্ষার জন্য ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ব্যাঙ্ক ঋণ পাবেন
  • ·       সর্বোচ্চ ৪০ বছর বয়সীরা আবেদন করতে পারবেন
  • ·       আবেদন করতে পারবেন রাজ্যে ১০ বছর ধরে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন এমন পরিবার

 

কি ধরণের পড়াশুনার জন্য এই WB student credit card scheme পাবেন

 

দশম শ্রেণি থেকে শুরু করে দ্বাদশ, স্নাতক, স্নাতকোত্তর, পোস্ট ডক্টরাল গবেষণা, পেশাগত শিক্ষা-সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে পড়াশোনার জন্য- ১০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত ঋণ নিতে পারবেন ছাত্রছাত্রীরা

 

কি কি সুবিধা পাওয়া যাবে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড স্কিম

  • ·       রাজ্যের পড়ুয়াদের উচ্চশিক্ষায় সহজশর্তে ঋণ পাবেন
  • ·       রাজ্য সরকার ওই ঋণের গ্যারান্টার হবে
  • ·       চাকরি হওয়ার পর বছর পর ১৫ বছরের মধ্যে ওই ঋণ ফেরত দিতে হবে
  • ·       নাম মাত্র শতাংশ সুদের হারে এই ঋণ পাওয়া যাবে
  • ·       সঠিক সময়ে এই ঋণ শোধ করলে সুদের উপর শতাংশ ছাড় পাওয়া যাবে

 

কোথা থেকে পাওয়া যাবে এই ঋণ

পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সমবায় ব্যাংক এবং এটি অনুমোদিত কেন্দ্রীয় সমবায় ব্যাংক / জেলা কেন্দ্রীয় সমবায় ব্যাংকসমূহ অন্যান্য স্বীকৃত পাবলিক / বেসরকারী সেক্টর ব্যাংকগুলি থেকে এই ঋণ দেওয়া হবে

 

কিভাবে আবেদন করা যাবে

 

অনলাইন আবেদনের জন্য এখানে ক্লিক করুন।

অনলাইন নির্দিষ্ট পোর্টাল থেকে আবেদন করা যাবে West Bengal Student Credit Card Online Application .

 

অনলাইনে আবেদন করার পর ছাত্র ছাত্রী রা পেয়ে যাবেন এই ক্রেডিট কার্ড যা উচ্চ শিক্ষার জন্য বাব্যহার করতে পারবেন

 

এই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড WBSCCS এর টাকা কিভাবে ব্যবহার করা যাবে

 

প্রাতিষ্ঠানিক ব্যয়

  • ·       কলেজ / বিশ্ববিদ্যালয় / এইচ.. প্রদানযোগ্য কোর্স ফি ইনস্টিটিউট (অন্তর্ভুক্ত) টিউশন ফি, পরীক্ষার ফি, গ্রন্থাগার ফি ইত্যাদি
  • ·       সাবধানতা আমানত / বিল্ডিং তহবিল / ফেরতযোগ্য ডিপোজিটের জন্য ফি (প্রতিষ্ঠানের বিল দ্বারা সমর্থিত)

 

-প্রাতিষ্ঠানিক ব্যয়

  • ·       কলেজ / বিশ্ববিদ্যালয় / এইচ.. থাকার জন্য প্রয়োজনীয় ফিগুলি ইনস্টিটিউট হোস্টেল
  • ·       হোস্টেলের বাইরে থাকার জন্য ভাড়া / লাইসেন্স ফি, বা থাকার জন্য ব্যয়
  • ·       বই / কম্পিউটার ল্যাপটপ / ট্যাবলেট ইত্যাদি কেনার জন্য ব্যয়

 

  • ·       কোর্স সমাপ্তির জন্য অন্যান্য খরচ প্রয়োজন, সি এইচ এস, স্টাডি ট্যুর, প্রকল্পের কাজ, থিসিস ইত্যাদিতে
  • ·       তবে যায় -প্রাতিষ্ঠানিক কাজে এই টাকা ব্যবহারের কিছু নিয়ম আছে
  • ·       একজন শিক্ষার্থী অধ্যয়নের পুরো কোর্সের জন্য অনুমোদিত মোট ঋণের ৩০ শতাংশ পর্যন্ত ব্যয় করতে পারবেন -প্রাতিষ্ঠানিক ব্যয়গুলির জন্য
  • ·       মোট ঋণের ২০ শতাংশ পর্যন্ত ব্যয় করতে পারবেন -প্রাতিষ্ঠানিক ব্যয় living expenses এর জন্য

 

কিভাবে ব্যবহার করা যাবে এই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড

·       প্রাতিষ্ঠানিক ব্যবহার এর ক্ষেত্রে টাকা সরকারি প্রতিষ্ঠানের ব্যাঙ্ক একাউন্ট যাবেবাকি ক্ষেত্রে টাকা স্টুডেন্ট এর ব্যাঙ্ক একাউন্ট দেওয়া হবে


Biplab Mondal

(BanglarBarta24x7.in) একটি বাংলা ভাষার ওয়েবসাইট। ভারতবর্ষের কেন্দ্রীয় সরকার এবং বিভিন্ন রাজ্য সরকার প্রতিবছর সরকারের কার্যকলাপ পরিচালনার জন্যে অনেক কর্মী নিয়োগ করে থাকে, সেই কর্মী নিয়োগের জন্যে বিভিন্ন দপ্তরে, বিভিন্ন সময়ে কর্মী নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত করে থাকে। আমরা দেশের বিভিন্ন সরকারের চাকরির এবং সরকারি প্রকল্পের অফিসিয়াল নোটিশের খোঁজ রাখি এবং তা সহজ বাংলা ভাষায় আমাদের ওয়েবসাইটে জানিয়ে থাকি। telegram instagram facebook twitter


কোনোরকম জিজ্ঞাসা বা মতামত থাকলে কমেন্ট করুন ....

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন (0)
নবীনতর পূর্বতন